গাজীপুর ইউনিয়নে সাবেক চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান গাজীর ব্যাপক উন্নয়ন।

গাজীপুর ইউনিয়নে সাবেক চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান গাজীর ব্যাপক উন্নয়ন।

হাইমচর প্রতিনিধি

চাঁদপুরের হাইমচর উপজেলার ১নং গাজীপুর ইউনিয়নের গ্রামীণ রাস্তাঘাট সংস্কারের করেছেন সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান গাজী।

৪০ দিনের কর্মসূচিকে চরাঞ্চলের সাধারণত রাস্তা, ধ্বসে যাওয়া রাস্তার পাড় সংস্কার করা হয়েছে। এতে দীর্ঘদিন থেকে চলাচল অনুপোযোগী হয়ে পড়া রাস্তাগুলো আবারো চলাচলের প্রস্তুত হয়ে উঠছে।

সেই সঙ্গে ইউনিয়নের হতদরিদ্র কর্মহীন মানুষগুলো শ্রমিক হিসাবে এ কর্মসূচিতে ৪০ দিন কাজ করার সুযোগ পাচ্ছেন। এতে তারাও আর্থিকভাবে কিছুটা হলেও লাভবান হয়েছেন।

পাশাপাশি সাধারণ মানুষের চলাচলের জন্য উপযোগী করে তোলা হয়েছে। এছাড়াও টি আর কাবিখা প্রকল্পের আওতায় বিভিন্ন এলাকায় রাস্তার পাশে গন শৌচাগার নির্মান, কালবার্ট সহ নানা উন্নয়ন করা হয়েছে।

মঙ্গলবার ২৪ জানুয়ারী মেঘনা নদী বেষ্টিত১ নং গাজীপুর ইউনিয়নে গিয়ে দেয়া যায়, রাস্তা সংষ্কার ব্যতীত বর্তমান আওয়ামিলীগ সরকারের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সহযোগিতায় মুজিব কেল্লা আশ্রয়ন কেন্দ্র নির্মান এবং আরো একটি মুজিব কেল্লা নর্মানাধীন।

গুচ্ছগ্রাম প্রকল্পে বাজাপ্তী ও মনিপুর গ্রামে ১৯০ টি ঘর তুলে হতদরিদ্রদের মাঝে প্রধান, একটি স্কুল ও একটি মাদ্রাসা নদী গর্বে বিলিন হওয়ার পর পুনঃস্থাপন করা , বিভিন্ন ওয়ার্ডে রাস্তা সংষ্কার করে চলাচলে উপযোগী করা হয়েছে।

নতুন একটি মসজিদের নির্মানে জন্য পাঁচ লক্ষ টাকা বরাদ্দ দিয়ে পক্রিয়াধীন, ইউনিয়ন পরিষদ নির্মানে ৯ লক্ষ ৮২ হাজার টাকা বরাদ্দের টেন্ডার পক্রিয়াধীন রয়েছে।

এসময় স্থানীয়রা জানান, ইউপি চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান গাজীর সময়কালে গাজীপুর ইউনিয়নে যে উন্নয় হয়েছে তা বিগত ৪০ বছরে এরজম উন্নয়ন হয়নি।

গাজীপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি হাবিবুর রহমান গাজী জানান, বর্তমান সরকার উন্নয়নের সরকার এবং জনগণের ভেটে নির্বাচিত সরকার ও উন্নয়নরে সরকার।

দীর্ঘ ২৬ বছর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি পদে দায়িত্ব পালন করে দলের ভাবমূর্তি নষ্ট হতে দেইনি। বিগত ২০১১ সালে ও ২০১৬ সালে আমি জনগনের ভোটে ইউপি চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েও হইব্রীড আওয়ামী লীগের ষড়যন্ত্রের কারনে শপথ নিতে পারিনি।

তারা আমাকে মামলা দিয়ে হয়রানি করে।২০১৮ সালের মার্চ মাসে সুপ্রিম কোর্টের পুল বেঞ্চ থেকে রায় নিয়ে গেজেট হওয়ার পর শপথ গ্রহন করি।

গত ২০২২ সালের ২৯ ডিসেম্বরের নির্বাচনে জননেত্রী শেখ হাসিনা আমার কাজের মূল্য দিয়ে আমাকে নৌকা প্রতিক উপহার দিয়েছেন।

কিন্তু পূর্বের ষড়যন্ত্রকারী হাইব্রিড আওয়ামী লীগের কারিরা নৌকার সাথে বিদ্রোহ করে আমাকে পরাজয় করে। তানাহলে মননীয় প্রধানমন্ত্রীর উন্নয়নের ধারাবাহিকতা রক্ষা পেত।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Website Design, Developed & Hosted by ALL IT BD