১২ নং চান্দ্রায় অবৈধ মিনি ড্রেজার চলছে কর্তৃপক্ষের নাকের ডগায়

১২ নং চান্দ্রায় অবৈধ মিনি ড্রেজার চলছে কর্তৃপক্ষের নাকের ডগায়

এস আর শাহ আলম

চাঁদপুর সদর ১২ নং চান্দ্রা ইউনিয়ন এলাকায় অবৈধ মিনি ড্রেজার দিয়ে বালি উত্তোলন করছে, অনেকটা কর্তৃপক্ষের নাকের ডগায়,

সরজমিন দেখা যায়,, বিগত ১৫ দিন ধরে দিনের আলোতে প্রকাশ্য দিবা লোকে চান্দ্রা ইটের ভাটার সামনে এলাকার ড্রেজার মালিক শাহজাহান নামে মিনি ড্রেজার মালিক ওই যায়গাটি অবৈধ ভাবে ভড়াট করে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে সরকারি রাজশ্ব ফাঁকি দিয়ে,

পাশের কৃৃষি জমির মাটি কাটার পড়ে বর্তমানে একটু দুরে তফদার বাড়ির পুকুরে মিনি ড্রেজারটি বসি অবৈধ ভাবে বালি উত্তোল করে নিজেকে লাভবান কররছে, তার সাথে অবৈধ ভাবে তফদার বাড়ির মালিক বালি বিক্রি করে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে, অথচ ভূমি কর্মকর্তার দায়িত্ব থাকলেও তিনিও এ বিষয়ে নিরব ভূমিকার দায়িত্ব পালন করছেন, যার ফলে দিনের পড় দিন মাসের পড় মাস শাহজাহান অবৈধ মিনি ড্রেজার দিয়ে বালি উত্তোলন করে আসছে, তার অবৈধ ব্যাবসার কারনে এক দিকে যেমনি কৃষি জমি হুমকির মূখে অপর দিকে পুকুর পারের আশ পাশের বসত ভিটে গুলিও,

এদিকে শাহ জাহানের মোঠ ফোনে আলাপ করলে তিনি বলেন আমাদের কোন বৈধতা নেই তার পরেও কিছু মেনেজ করে আমরা এই মিনি ড্রেজার চালাই, তবে কিছু মেনেজ বা কাকে মেনেজ করে অবৈধ ভাবে মিনি ড্রেজার দিয়ে বালি উত্তোলন করছেন জানতে চাইলে বলেন দুইজন সাংবাদিক আছে, বলে তাদের নাম না বলে উল্টো দিক থেকে তিনি বলেন আমি এক ঘন্টা পড়ে ফোন করছি বলে ফোন কেটে দেন, কিন্তু আর কোন ফোন ধরেন না বা করেন নি।

এই ভাবে বছরের পড় বছর চাঁদপুর জেলা জুরে অবৈধ মিনি ড্রেজার দিয়ে অবৈধ ভাবে বালি উত্তোলন করে আসলেও, কর্তৃপক্ষের তেমন কোন পদক্ষেপ নেই, তবে লোক দেখানো মাঝে মাঝে অভিযান হয়,, যাহা অনেকটা দূর্বোল হাতে ওই সব অবৈধ ড্রেজার মালিকদের উপর,, ফলে তাদের অবৈধ ব্যাবসার অগ্রযাএা দিন দিন বেরে চলছে,

আরো জানা যায় শাহজাহান ওই এলাকায় এক মাস আগে পাশের আরেকটি জমি ভড়াট করেছে মিনি ড্রেজার দিয়ে, অথচ চান্দ্রা থেকে ভাটিয়াল পুর যাওয়ার সড়কের পাশেই তার ভড়াট কাজ চলছে, দেখার যেনো কেউ নেই, তাছারা ইউনিয়ন মেম্বারগনরাও নিরব রযেছে, তাদের নিরবতার কারন কি এটাই হতে পারে অবৈধ মিনি ড্রেজার মালিক রা তাদের কে মিলমিশ করে তাদের ব্যাবসা পরিচালনা করে আসছে, এখন মূলত বিয়য় জেলা প্রশাসক এ বিষয়ে কোন পদক্ষেপ নিচ্ছেন নাকি কর্তৃপক্ষ নিরব থাকবে এটাই প্রশ্ন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Website Design, Developed & Hosted by ALL IT BD